গর্ভকালীন খাবারের তালিকা

গর্ভকালীন খাবারের তালিকা

গর্ভাবস্থায় খাবারের তালিকা
এখানে কিছু সাধারণ রুটিন উদাহরণ আছে। তবে আপনাকে অবশ্যই আপনার পুরানো, শারীরিক অবস্থা, আপনার ডাক্তারের কাছ থেকে উড়ে ভাল ডায়েট নিতে হবে।

সকালে-

সংক্ষিপ্ত – গৌরব সময় অনেক ইচ্ছা এবং বমি অংশ হবে. সেক্ষেত্রে খালি পেটে কোনো ভারী খাবার ছাড়া খোলা চা (গ্রিন টি) ও বিস্কুট খেতে পারেন। আরও সহজে আপনি প্ল্যান আয়রনের কারণ ডেট করেন যা রক্তাল্পতা প্রতিরোধে সহায়তা করে। দিনে 10/11 বার আপনি 1 গ্লাস মাখন ছাড়া দুধ বা ফলের রস পান করতে পারেন।

দুপুরে-

ভাগ্যক্রমে, মহিমান্বিত মা মাছ বা মাংস, সবজির তরকারি, সবজি, ডাল এবং তাজা ফল এবং সবজি সালাদ সহ 1 বাটি ভাত পান। রাজনীতিতে অধিকার পেতে পারেন। ভিটামিন সি-সমৃদ্ধ খাবার যেমন আমলকি, কমলা বা লেবু স্বয়ংক্রিয়ভাবে যুক্ত হয়ে আয়রন শোষণ বাড়ায়।

বিকালে-

তৈলাক্ত নাস্তা বা ভাজা খাবার তৈরির জন্য যেকোনো স্বাস্থ্যকর নাস্তা বা কেক বাদাম বা মটর দিয়ে রান্না করা যেতে পারে। আপনি নিজেই ফল বা 1 গ্লাস ফলের রস তৈরি করতে পারেন।

রাতে-

রাত হবে রাতের খাবারের গানের মতো। রাতে সবজি ভালো হয় না। আপনি আরও সবজি তরকারি করতে পারেন। ঘুমাতে যাওয়ার আগে আপনি 1 গ্লাস ডাক্তার পেতে পারেন। রাতে চিনিযুক্ত খাবার কমিয়ে আরও জাতীয় খাবার চেষ্টা করব। অ্যাসিডিটির সমস্যা এড়াতে রাতের খাবার দুই ঘণ্টা আগে খেতে হবে।

ইউটিউবোসিস বা উচ্চ রক্তচাপের সমস্যা থাকলে তারা ডায়াবেটিসের মতো খাবার খাবেন বলে চিকিৎসকরা জানিয়েছেন। ডায়াবেটিস রোগীদের চিনিযুক্ত এবং জাতীয় খাবার খাওয়া উচিত এবং ব্লাশার রোগীদের কাছে যেতে হবে।

By Taher

আসসালামু-আলাইকুম ওয়ারাহমাতুল্লাহি-ওয়াবারাকাতুহু ।আমি মোঃ আবু তাহের ইসলাম (আমান)। আমি গয়াবাড়ি স্কুল এন্ড কলেজ পড়াশোনা করি । আমি এসএসসি পরীক্ষার্থী 2022 সাল । আমার সাবজেক্ট একাউন্টিং। আমি ভবিষ্যতে যেকোনো একটি ভালো প্রতিষ্ঠানে চাকরি করে আমার জীবনকে পরিপূর্ণ আঙ্গিকে নতুন করে সাজানোর আশাবাদী । আমার পুরো জীবনটা হচ্ছে, একটা সরল অংকের মত । যতই দিন যাচ্ছে ততই আমি সমাধানের দিকে যাচ্ছি ইনশাআল্লাহ......নতুনের প্রতি মানুষের আকর্ষণ চিরস্থায়ী- তাই https://dailyinfo71.com/ ওয়েবসাইটে নিয়মিত লেখালেখি করি। ধন্যবাদ সবাইকে

Leave a Reply

Your email address will not be published.