গলায় মাছের কাঁটা আটকে গেলে কি করব?2021

গলায় মাছের কাঁটা আটকে গেলে কি করব?2021

আমরা মাছে-ভাতে বাঙালির কাছে মাছ খুবই প্রিয় একটি পদ। কিন্তু এ প্রজন্মের অনেকেই মাছ খেতে চান না কাঁটার ভয়ে। ইলিশের স্বাদও অনেকে দূরে সরিয়ে রাখেন শুধুমাত্র অতিরিক্ত কাঁটার জন্য। তৃপ্তিভরে মাছ ভাত খেতে খেতে হঠাৎ গলায় কাঁটা বিঁধে গেলেই সর্বনাশ!

নিত্যদিনের ব্যস্ততার মধ্যে, তাড়াহুড়োয় এই কাঁটা বাছার ঝামেলা এড়াতেই মাছ খেতে চান না অনেকে। অনেকেই গলায় বিঁধে যাওয়া মাছের কাঁটা দূর করার সহজ উপায় হিসাবে এক দলা সাদা ভাতের মণ্ড খেয়ে থাকেন। নরম ছোট কাঁটা হলে এতে অনেক সময় নেমেও যায়। তবে এ ছাড়াও বেশ কিছু ঘরোয়া উপায়ে গলায় বিঁধে থাকা মাছের কাঁটা দূর করা যায়। আসুন জেনে নেওয়া যাক সেই সব ঘরোয়া উপায়গুলি…

    শিশুর গলায় মাছের কাঁটা আটকে গেলে করণীয়

শিশুর গলায় মাছের কাঁটা আটকে গেলে সামান্য একটু লেবুর রস মিশিয়ে দিলে সেই কাটা পাকস্থলীর ভেতরে চলে যায়। শিশু যেহেতু কোন কিছু বলতে পারে না বা বলতে পারলেও অসম্পূর্ণভাবে বলে তাই, অভিভাবক কে তার দেখভাল করতে হবে। বাসা লেবুর রস না থাকলেও আপনি অন্য উপায় অবলম্বন করতে পারেন জানিয়েছে বিস্তারিত আলোচনা করা হয়েছে।

সুতরাং, গলায় মাছের কাঁটা আটকে গিয়ে অনেকেই সুপ্রভাত গিলে খেতে বলে। কিন্তু তাতে ঝুঁকি আরো বেশি থাকে। তাই সঠিকভাবে সঠিক পন্থা অবলম্বন করে গলা থেকে মাছের কাঁটা সরাতে আমাদের নিচের পদক্ষেপগুলি অনুসরণ করুন।

      গলায় মাছের কাঁটা আটকে গেলে করণীয়

  • গলায় কাঁটা বিঁধলে দেরি না করে অল্প অলিভ অয়েল খেয়ে নিন। অলিভ অয়েল অন্য তেলের তুলনায় বেশি পিচ্ছিল। তাই গলা থেকে কাঁটা পিছলে নেমে যাবে সহজেই।
  • গলায় কাঁটা আটকালে হালকা গরম জলে একটু লেবু নিংড়ে সেই মিশ্রণ খান। লেবুর অ্যাসিডিক ক্ষমতা কাঁটাকে নরম করে দিতে সক্ষম। ফলে গরম জলে একটু লেবু নিংড়ে খেলে কাঁটা নরম হয়ে নামবে সহজেই।
  • জলের সঙ্গে ভিনিগার মিশিয়ে নিন। ভিনিগার গলায় বিঁধে থাকা মাছের কাঁটাকে নরম করার ক্ষমতা রাখে। তাই জলের সঙ্গে ভিনিগার মিশিয়ে খেলে কাঁটা সহজেই নেমে যায়।

         হাতে মাছের কাঁটা আটকে গেলে করণীয়

মাছ পরিষ্কার করতে গিয়ে বেশিরভাগ ক্ষেত্রে শিং মাছের কাঁটা হাতে আটকে গেলে ভীষণ ব্যথা অনুভূত হয়। সে ব্যথা কেলা ভোগ করার জন্য যত তাড়াতাড়ি সম্ভব আপনি ডাক্তারের পরামর্শ নিতে পারেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.