ডিজিটাল মার্কেটিং?ডিজিটাল মার্কেটিং কিভাবে শিখব?

হাই বন্ধুরা, আসসালামুআলাইকুম ওয়ারাহমাতুল্লাহি ওয়াবারাকাতুহু। বন্ধুরা আজকে আমি আপনাদের সামনে ডিজিটাল মার্কেটিং সম্পর্কে আলোচনা করব। তো বন্ধুরা আপনার ডিজিটাল মাকিং এ কেমন করে টাকা ইনকাম করবেন। ডিজিটাল মার্কেটিং কেমন করে শিখবেন সেসব বিষয় নিয়ে আমি আপনাদের সামনে আলোচনা করব। তো বন্ধুরা আর দেরি না করে চলুন শুরু করা যাক।

ডিজিটাল মার্কেটিংডিজিটাল মার্কেটিং কিভাবে শিখবডিজিটাল মার্কেটিং (Digital Marketing) জনপ্রিয় হলেও এর বাস্তবিক পরিসর অনেক বড়।
ডিজিটাল মার্কেটিং সাধারণত অনেক প্রকারের হয়ে থাকে তবে পাঁচটি প্রকার অন্যতম। আজকে আমি এই পাঁচ প্রকার সম্পর্কে বিস্তারিত আলোচনা করার চেষ্টা করবো।

          • কনটেন্ট মার্কেটিং Content marketing
          • সার্চ ইঞ্জিন অপটিমাইজেশন Search engine optimization (SEO)
          • সার্চ ইঞ্জিন মার্কেটিং Search engine marketing (SEM)
          • সোসাল মিডিয়া মার্কেটিং Social media marketing (SMM)
          • ইমেইল মার্কেটিং Email marketing

কনটেন্ট মার্কেটিং Content marketing

টার্গেট অডিয়েন্সের কাছে ইনফরমেটিভ কন্টেন্ট পৌছিয়ে দেয়ার মাধ্যমে তাদেরকে ব্র্যান্ডের প্রতি আকৃষ্ট করাই কন্টেন্ট মার্কেটিং। আরও সহজভাবে বললে, আপনার প্রোডাক্ট বা অফার সম্পর্কে গুরুত্বপূর্ণ তথ্য দিয়ে কন্টেন্ট তৈরি করে বিভিন্ন মিডিয়ার মাধ্যমে টার্গেট অডিয়েন্সকে এঙ্গেজ করাকেই কন্টেন্ট মার্কেটিং বলে।কন্টেন্ট মার্কেটিং এর মূল লক্ষ্যই হলো আপনার অডিয়েন্সকে মজার ও গুরুত্বপূর্ণ ইনফরমেশন দিয়ে তাদের মনে ব্র্যান্ড/প্রোডাক্টের জায়গা করে নেয়া।তাই সঠিক এবং ইউজারদের কাজে লাগবে এমন তথ্য চমকপ্রদভাবে উপস্থাপনের কোনও বিকল্প নেই ।

দুনিয়াব্যাপি কন্টেন্ট মার্কেটিং এর চাহিদা বাড়ছে। মানুষজন এখন বিজ্ঞাপন দেখতে পছন্দ করেনা। তাই চমৎকার তথ্য সমৃদ্ধ কন্টেন্টের মাধ্যমে তাদেরকে পণ্যের ব্যাপারে আকৃষ্ট করতে হয়। দিনে দিনে এর চাহিদা আরো বাড়বে। সব কোম্পানি বা ব্র্যান্ড তাদের ইনহাউজ মার্কেটিং টিমে কিংবা অ্যাড এজেন্সিগুলো কন্টেন্ট মার্কেটিং স্পেশালিষ্ট খুঁজে বেড়াচ্ছে।

অনলাইন মার্কেটপ্লেস গুলোতেও আছে এই কাজের প্রচুর চাহিদা।
২০১৯ সালে বেশ কিছু বড় এজেন্সি আছে যারা দুনিয়াব্যাপি কন্টেন্ট মার্কেটিং সার্ভিস দিচ্ছে। এদের মধ্যে উল্লেখযোগ্য হলো, Location3, Digivate, Leverage Marketing, 97th Floor ইত্যাদি।তাই আপনাদের কন্টেন্ট মার্কেটিং আইডিয়ার ফান্ডামেন্টাল যেন বেশ স্ট্রং হয়ে থাকে এজন্য কিছু রিসোর্স শেয়ার করছি। এগুলা স্টাডি করতে থাকুন। আশা করি কন্টেন্ট মার্কেটিং স্কিল আপনার আয়ত্তে আসা শুরু করবে ।

সার্চ ইঞ্জিন অপটিমাইজেশন Search engine optimization (SEO)

বাংলাতে সংজ্ঞা দিলে বলা যায়, এসইও হল কিছু নিয়মনীতি/টেকনিক যার মাধ্যমে কোন একটা ওয়েবসাইট বিভিন্ন ধরনের সার্চ ইঞ্জিন (google, msn, yahoo etc) থেকে বেশি পরিমাণে ভিজিটর/ট্র্যাফিক পেতে পারে।

আরো সহজ ভাবে বলা যায়: যদি আমরা একটি গান ডাউনলোড করতে চাই, তাহলে আমরা সাধারণত যে কাজটি করি তা হল google এ আমরা ঐ গানের লাইনটি লিখে search করি। এখন লক্ষ্য করুন আমরা search button press করার পর google কিছু website এর নাম দেখায় যেখানে আমরা ঐ গানটি পেতে পারি। আরো সহজ ভাবে বলা যায়:

যদি আমরা একটি গান ডাউনলোড করতে চাই, তাহলে আমরা সাধারণত যে কাজটি করি তা হল google এ আমরা ঐ গানের লাইনটি লিখে search করি। এখন লক্ষ্য করুন আমরা search button press করার পর google কিছু website এর নাম দেখায় যেখানে আমরা ঐ গানটি পেতে পারি।

এসইও-কে সাধারণত ২ভাগে ভাগ করা হয়:

  • On Page SEO
  • Off page SEO

On page SEO: সহজভাবে বলা যায়, আপনি আপনার ওয়েবসাইট সর্ম্পকে যা বলছেন।
Off page SEO হল অন্যরা আপনার সর্ম্পকে যা বলছে।

সার্চ ইঞ্জিন মার্কেটিং Search engine marketing (SEM)

সার্চ ইঞ্জিন মার্কেটিং, বা এসইএম, হ’ল নতুন গ্রাহক অর্জনের জন্য সার্চ ইঞ্জিনের ফলাফল পৃষ্ঠাগুলিতে বা এসইআরপিগুলিতে প্রদত্ত বিজ্ঞাপনগুলির ব্যবহার। বেশিরভাগ সার্চ ইঞ্জিনগুলি SEM এর কিছু ফর্ম ব্যবহার করে। SEM অর্থ প্রদত্ত অনুসন্ধান বিজ্ঞাপন, অর্থ প্রদান বিজ্ঞাপন এবং প্রতি-ক্লিকে প্রদান, বা পিপিসি হিসাবে পরিচিত।

সার্চ ইঞ্জিন মার্কেটিং(SEM), সার্চ ইঞ্জিন অপ্টিমাইজেশন বা সোশ্যাল মিডিয়া মার্কেটিংয়ের মতো অন্যান্য অনলাইন বিপণন কৌশলগুলির সাথে ওভারল্যাপ করলেও এসইএমের প্রাথমিক পার্থক্য হ’ল এটি বিজ্ঞাপন দেওয়া হয়।

সোসাল মিডিয়া মার্কেটিং Social media marketing (SMM)

সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে ডিজিটাল মার্কেটিং (digital marketing) করা সম্ভব হচ্ছে। যেহেতু হাজার হাজার লোক সোশ্যাল মিডিয়াগুলো ব্যবহার করছে তাই বিভিন্ন প্রোডাক্ট এর মার্কেটিং, Business বা কোম্পানির মার্কেটিং এর ক্ষেত্রে সোশ্যাল মিডিয়া গুলো ব্যবহার করা হচ্ছে।

অনলাইন মার্কেটিং হলো এমন একটি প্রক্রিয়া যার মাধ্যমে কোন বিজনেস প্রোডাক্ট সার্ভিস ইত্যাদির প্রমোশন (promotion) ইন্টারনেটের মাধ্যমে মানুষের কাছে করা হয়ে থাকে।এখন অনেক সহজেই সোশ্যাল মিডিয়াগুলো ব্যবহার করে কোম্পানির প্রচার করা যাচ্ছে। নিজের ব্যবসার প্রসার কিংবা প্রমোশন এর ক্ষেত্রে বর্তমান সময়ে সোশ্যাল মিডিয়া মার্কেটিং খুবই লাভজনক মাধ্যম।আর এই মার্কেটিং যদি সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে করা হয় তাহলে তাকে সোশ্যাল মিডিয়া মার্কেটিং বলে।

ইমেইল মার্কেটিং Email marketing

কোন কিছু প্রচার বা প্রসার এর উপায় হচ্ছে মার্কেটিং। আর ইমেইলের মাধ্যমে কোন প্রোডাক্ট বা সেবা গ্রাহকের কাছে প্রচারের উপায় কে email-marketing বলা হয়।
ইমেইল মার্কেটিংয়ের মাধ্যমে আপনি খুব সহজে আপনার ব্যবসা বাড়িয়ে নিতে পারবেন এবং আপনার পছন্দের কাস্টমারদের কাছে অনায়াসে পৌঁছে যেতে পারবেন।

এই ডিজিটাল যুগে কে না ই-মেইল ব্যবহার করে? আপনি যদি এন্ড্রয়েড ব্যবহার করে থাকেন, তাহলে তো ইমেইল ছাড়া প্লে স্টোর থেকে আপনার ফোনে একটা অ্যাপ ও ডাউনলোড করতে পারবেন না।বর্তমানে ইমেইল ছাড়া লোকের সংখ্যা নেহায়েতই অনেক কম। তাই আপনি সহজে আপনার কাস্টমারদের কাছে আপনার পণ্য পৌঁছে দিতে পারবেন। আসলে বর্তমান যুগের প্রতিটি ব্যবসার মার্কেটিং কৌশল এর একটি কেন্দ্রীয় অংশহিসেবে ইমেইল মার্কেটিং খুব শীঘ্রই প্রাধান্য পাবে।

তো বন্ধুরা আমার এই পোস্টটি আপনাদের ভালো লেগে থাকে, তাহলে অবশ্যই কমেন্ট করে জানাবেন।  আজকে  এই পযন্ত সকলে ভাল থাকবেন, সুস্থ থাকবেন ,আল্লাহ হাফেজ

ধন্যবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published.