The History of Earth

হাই বন্ধুরা আসসালামুআলাইকুম ওয়ারাহমাতুল্লাহি ওয়াবারাকাতুহু ।আশা করি আপনারা সকলে ভালো আছেন। তো বন্ধুরা আজকে আমি আপনাদের সামনে কিছু কথা বলব। তো বন্ধুরা আজকে আমি আপনাদের সামনে যে, বিষয়ে কথা বলব সেই বিষয় হচ্ছে মহাকাশ ও বিজ্ঞান। তো বন্ধুরা পৃথিবী কেমন করে সৃষ্টি হয়েছে, পৃথিবী জন্ম কখন হয়েছে, এ এসব বিষয়ে আমি আপনাদের সামনে কিছু কথা বলব। তো বন্ধুরা আর দেরি না করে চলুন শুরু করা যাক।

পৃথিবীর জন্ম হয়েছিল কিভাবে?

বিজ্ঞানী প্রায় সাড়ে ৪০০ কোটি বছর আগে আমাদের গ্রহের বয়স যখন ১০০ কোটি বছর ছিল, সে সময় থিয়া নামক একটি গ্রহের সঙ্গে মুখোমুখি তীব্র সংঘর্ষের ফলে থিয়া গ্রহটি পৃথিবীর সঙ্গে জুড়ে যায়। তৈরি হয় নতুন একটি গ্রহ। আর নতুন এই গ্রহটিতেই আমরা বাস করছি


প্রায় ১৭০০ কোটি বছর পূর্বে “বিগ ব্যাং”এর ফলে সৃষ্টি হয় সৌরজগত, গ্রহ,নক্ষত্র।
সৌরজগত সৃষ্টির মোটামুটি ১০০ মিলিয়ন বছর পর একগুচ্ছ সংঘর্ষের ফল হল পৃথিবী।
আনুমানিক ৪.৫৪ বিলিয়ন বছর পূর্বে পৃথিবী তার আকৃতি পায়,পায় লৌহের একটি কেন্দ্র ও বায়ুমণ্ডল।

মোটামুটি মঙ্গলের আকৃতির “ থিয়া” নামের একটি গ্রহাণুর সাথে সংঘর্ষ হয় পৃথিবীর,ফলে পৃথিবীর বায়ুমণ্ডল উবে যায় আর গ্রহাণুটি ধ্বংস হয়ে যায়। অবশিষ্ট ধ্বংসাবশেষ একত্রিত হয়ে গঠন করে চাঁদ। 🌙
থিয়ার সাথে সংঘর্ষের ফলে উত্তপ্ত হয়ে ওঠে পৃথিবী। টগবগ করে ফুটতে থাকা গলিত লাভা তখন চারদিকে।
ধীরে ধীরে ঠান্ডা হয়ে আসে পৃথিবী। লাভা জমাট বেধে তৈরি করে পাথর।

আমাদের ভূত্বক গলিত লাভা থেকেই তৈরি হয়েছে। জল জমে সৃষ্টি হয় সাগর-মহাসাগর।এ সময় তৈরি হয় পৃথিবীর প্রাচীনতম খনিজ জিরকন।যার বয়স আনুমানিক ৪.৪ বিলিয়ন বছর।
এখন পৃথিবীর বিভিন্ন মহাদেশ বসে আছে অতিকায় সব টেকটোনিক প্লেটের উপর।আজ থেকে প্রায় ৩.৮ বিলিয়ন বছর পূর্বে তৈরি হয়েছিল এসব মহাদেশীয় প্লেট।


প্রথম মহাদেশ সৃষ্টি হবার এক বিলিয়ন বছর পর্যন্ত তেমন কোন পরিবর্তন হয়নি পৃথিবীতে।
মোটামুটি ৩.৫ বিলিয়ন বছর পূর্বে সালোকসংশ্লেষন থেকে পৃথিবীতে আসে প্রথম অক্সিজেন।
এভাবে ২.৪ বিলিয়ন বছর পূর্বে পৃথিবীতে অক্সিজেনের মাত্রা অনেক বেশি বেড়ে যায়,
যাকে বলা হয় “Great Oxygenation Crisis“প্যানগায়ার মাধ্যমে অখণ্ড মহাদেশটি বিভক্ত হয়ে তৈরি করে অনেক গুলো মহাদেশ।


আনুমানিক ৭৫০ মিলিয়ন বছর পূর্বে পৃথিবী একেবারে ঠান্ডা হয়ে বিশাল একটা বরফের গোলায় পরিণত হয়েছিল। এ সময় হিমবাহে ঢাকা ছিল পুরো পৃথিবী।
আনুমাণিক ৬৫০ মিলিয়ন বছর পূর্বে বায়ুমণ্ডলে আবারও বাড়তে শুরু করে অক্সিজেন। এ সময় বিভিন্ন প্রাণীর উদ্ভব ঘটে। এককোষী প্রাণীর পাশাপাশি এসে পড়ে বহুকোষী প্রাণী।


প্রায় ৪৫০ মিলিয়ন বছর পূর্বে বড়সড় একটা তুষার যুগের কারণে বিলুপ্ত হয় ৭৫ শতাংশ জীবের।প্রায়২৫২ মিলিয়ন বছর পূর্বে পারমিয়ান পিরিয়ডে মাত্র ৬০ হাজার বছরের মধ্যে ৯০ শতাংশ জীবের বিলুপ্তী ঘটে।প্রায় ৬৬ মিলিয়ন বছর পূর্বে ক্রেটেশাস পিরিয়ডে বিলুপ্তি ঘটে ডাইনোসরের।
এ যাবৎ পৃথিবীতে বড় বড় ৫টি বরফ যুগ দেখা যায়। বর্তমানেও আমরা একটি বরফ যুগে বাস করছি।
আনুমাণিক ২ মিলিয়ন বছর পূর্বে হোমো সেপিয়েন্স বা আদিম মানুষের আবির্ভাব ঘটে।

তো বন্ধুরা আমার এই পোস্টটি আপনাদের ভালো লেগে থাকে তাহলে অবশ্যই কমেন্ট করে জানাবেন। সকলে ভাল থাকবেন, সুস্থ থাকবেন, নিরাপদে থাকবেন।

ধন্যবাদ

By Taher

আসসালামু-আলাইকুম ওয়ারাহমাতুল্লাহি-ওয়াবারাকাতুহু ।আমি মোঃ আবু তাহের ইসলাম (আমান)। আমি গয়াবাড়ি স্কুল এন্ড কলেজ পড়াশোনা করি । আমি এসএসসি পরীক্ষার্থী 2022 সাল । আমার সাবজেক্ট একাউন্টিং। আমি ভবিষ্যতে যেকোনো একটি ভালো প্রতিষ্ঠানে চাকরি করে আমার জীবনকে পরিপূর্ণ আঙ্গিকে নতুন করে সাজানোর আশাবাদী । আমার পুরো জীবনটা হচ্ছে, একটা সরল অংকের মত । যতই দিন যাচ্ছে ততই আমি সমাধানের দিকে যাচ্ছি ইনশাআল্লাহ......নতুনের প্রতি মানুষের আকর্ষণ চিরস্থায়ী- তাই https://dailyinfo71.com/ ওয়েবসাইটে নিয়মিত লেখালেখি করি। ধন্যবাদ সবাইকে

Leave a Reply

Your email address will not be published.