ব্যাংক একাউন্ট খোলার নিয়ম। ব্যাংকের সুবিধা এবং একাউন্ট খুলতে কি কি লাগে?

ব্যাংক একাউন্ট খোলার নিয়ম। ব্যাংকের সুবিধা এবং একাউন্ট খুলতে কি কি লাগে?

একটি ব্যাংক কি?

ব্যাংক বলতে আমরা এমন একটি কোম্পানিকে বোঝায় যারা টাকা রাখে। ব্যাংকে টাকা জমা দিলে লাভও পাওয়া যায়। তবে শুধু টাকা জমা দিলেই ব্যাংকের কাজ শেষ হয়ে যায় না।

ব্যাঙ্কগুলি ব্যক্তির সঞ্চয় বা সংস্থার জমাকৃত অর্থ জমা করার মাধ্যমে মূলধন বৃদ্ধি করে। উদ্যোক্তাদের মধ্যে উল্লিখিত মূলধন প্রদান বা বিনিয়োগ করে ব্যাংকগুলি মুনাফা করে।

 

ব্যাংক অ্যাকাউন্টের সুবিধা

টাকা জমা করা ছাড়াও ব্যাংকের আরও অনেক সুবিধা রয়েছে। ব্যাংকের উল্লেখযোগ্য কিছু সুবিধা হল:

 

  • ব্যাংক অ্যাকাউন্টের মাধ্যমে অর্থ প্রদানের প্রক্রিয়া অনেক সহজ হয়েছে।
  • এটিএম এবং ডেবিট-ক্রেডিট কার্ডের মাধ্যমে ব্যাঙ্কগুলির পক্ষে যে কোনও জায়গায় অর্থপ্রদান করা অনেক সহজ হয়ে উঠেছে।
  • হাতে টাকা রাখার ক্ষেত্রে চুরির আশঙ্কা থাকলেও ব্যাংকে রাখা টাকা নিরাপদ।
  •  সঞ্চয় অ্যাকাউন্টে উল্লেখযোগ্য পরিমাণ অর্থ জমা করে সঞ্চয়ের পাশাপাশি মুনাফা পাওয়া সম্ভব।
  • ব্যাংক ঋণের সঠিক ব্যবহার অনেক ব্যক্তিগত বা প্রাতিষ্ঠানিক আর্থিক সমস্যার সহজ সমাধান।

 

ব্যাংক অ্যাকাউন্ট খুলতে কি কি  লাগে

একটি ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্ট খুলতে কিছু নথির প্রয়োজন হয়। এই নথিগুলি একটি ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্ট খোলার জন্য অপরিহার্য। উল্লেখ্য, ব্যাংকে উল্লেখিত নথির ক্ষেত্রে তারতম্য দেখা যেতে পারে।

একটি ব্যাংক অ্যাকাউন্ট খুলতে সাধারণত যা লাগে:

  • ব্যাংক অর্থপ্রদত্ত অ্যাকাউন্ট ফর্ম
  • অ্যাকাউন্টধারীর দুটি সাম্প্রতিক পাসপোর্ট সাইজের রঙিন ছবি (যাচাই করা যেতে পারে)
  •  সাম্প্রতিক মনোনীত ব্যক্তির পাসপোর্ট সাইজ কপি
  • অ্যাকাউন্টধারী এবং মনোনীত উভয়েরই ছবির পরিচয়পত্র, যেমন
  • জাতীয় পরিচয়পত্র/পাসপোর্ট/ড্রাইভিং লাইসেন্স, যেকোনো একটির কপি
  • জন্ম নিবন্ধন শংসাপত্র ব্যবহার করে একটি ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টও খোলা যেতে পারে। যাইহোক, সেক্ষেত্রে আপনাকে অ্যাকাউন্ট ম্যানেজারের ছবির সাথে অন্য কিছু বিশ্বাসযোগ্য প্রমাণপত্র প্রদান করতে হতে পারে।

একটি একমাত্র মালিকানা ব্যবসার কারেন্ট অ্যাকাউন্ট খোলার জন্য একটি আপডেটেড ট্রেড লাইসেন্স এবং সংস্থার সিল প্রয়োজন। সাম্প্রতিক কর্পোরেট কেলেঙ্কারির ফলে এই বিশেষত্বের চাহিদা উল্লেখযোগ্যভাবে বৃদ্ধি পেয়েছে।

ব্যাংক অ্যাকাউন্ট খোলার নিয়ম

একটি ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্ট খোলার সময়, আপনার নিম্নলিখিত দরকারী জিনিসগুলি সম্পর্কে জানা উচিত:

ফর্ম: ব্যাঙ্কের দেওয়া অ্যাকাউন্ট ফর্মটি সংগ্রহ করুন এবং উপযুক্ত তথ্য দিয়ে ফর্মটি পূরণ করুন।

নমুনা স্বাক্ষর কার্ড: অ্যাকাউন্টধারীকে ব্যাঙ্ক অফিসারের সামনে স্বাক্ষর করতে হবে, যা নমুনা স্বাক্ষর কার্ড হিসাবে পরিচিত। বেশিরভাগ ক্ষেত্রে এই কার্ডটি অ্যাকাউন্ট খোলার ফর্মের সাথে দেওয়া হয়।

শনাক্তকারী: ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্ট খোলার ব্যক্তির পরিচয় নিশ্চিত করার জন্য একজন শনাক্তকারীর প্রয়োজন হয়। এমনকি অ্যাকাউন্ট খোলার সময় সনাক্তকারী ব্যক্তিগতভাবে উপস্থিত না থাকলেও। তবে, শনাক্তকারী থাকার বাধ্যবাধকতা আর নেই।

নমিনি: অ্যাকাউন্ট খোলার ব্যক্তির অনুপস্থিতিতে অ্যাকাউন্টের মালিককে নমিনি বলা হয়।

উপরে উল্লিখিত নথি এবং তথ্য সংগ্রহ করুন এবং আপনি যে ব্যাঙ্কে অ্যাকাউন্ট খুলতে চান তার নিকটতম শাখায় যোগাযোগ করুন। তবে সবচেয়ে ভালো হয় যদি আপনি প্রথমে ব্যাঙ্কের হেল্পলাইনে কল করতে পারেন। এতে প্রয়োজনীয় কাগজপত্র পাওয়া সহজ হবে। আপনার দেওয়া তথ্য ও নথিগুলো সঠিক হলে অল্প সময়ের মধ্যেই আপনার ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্ট তৈরি হয়ে যাবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.